সুন্দরগঞ্জে বিসিজি টীকায় শিশুর মৃত্যু

বিডিপ্রেস এজেন্সি,নেত্রকোনা : গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার বামনডাঙ্গা ইউনিয়নের জামাল গ্রামের ২২ দিন বয়সের শিশু মহসিনার মৃত্যুতে টীকা প্রদানকারী ২ স্বাস্থ্য কর্মীকে দায়ী করছেন স্বজনরা।স্থানীয় ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, বুধবার বিকেলে উক্ত গ্রামের আব্দুর রহিমের মেয়ে শিশু মহসিনাকে যক্ষ্মা প্রতিশেধক (বিসিজি) টীকা দেয়ার ফলে মৃত্যু হয়েছে বলে পরিবারের পক্ষ থেকে দাবী করা হচ্ছে। এঘটনায় সংশ্লিষ্ট স্বাস্থ্য সহকারী জাকারিয়া হোসেন ও লুচি বেগমকে দায়ী করে মহসিনার বাবার আনীত অভিযোগের প্রেক্ষিতে থানা পুলিশ শিশুর লাশ উদ্ধার করে।

এব্যাপারে মোবাইলফোনে কথা হলে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আশরাফুজ্জামান সরকার জানান, একই টীকা আরও ১০ শিশুকে দেয়া হয়েছে। তারা সুস্থ আছে। তবে শিশু মহসিনার মৃত্যুর কারণ অন্য কিছু হতে পারে বলে ধারণা করেন তিনি। থানা অফিসার ইনচার্জ আব্দুল্লাহিল জামান জানান, শিশু মহসিনার লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানোসহ এ ঘটনায় অপমৃত্যু মামলার প্রস্তুতি চলছে।

বিডিপ্রেস এজেন্সি/টিএস

আরও পড়ুন...