না ফেরার দেশে ‘সুপার এজেন্ট’ মিনো রায়োলা

বিডিপ্রেস এজেন্সি ডেস্ক : তিনদিন আগে মৃত্যুর গুঞ্জনে ক্ষোভ উগড়ে দিয়েছিলেন হাসপাতালে শয্যাশায়ী মিনো রায়োলা। কিন্তু জীবনযুদ্ধে হেরে গেলেন শনিবার। ‘সুপার এজেন্ট’ ৫৪ বছর বয়সে না ফেরার দেশে চলে গেলেন, এক বিবৃতিতে তার পরিবার এই খবর নিশ্চিত করেছে।

জ্লাতান ইব্রাহিমোভিচ, আর্লিং হাল্যান্ড ও পল পগবার মতো তারকা খেলোয়াড়দের এজেন্ট ছিলেন রায়োলা। দলবদলের বাজারের চিত্র তিনি পাল্টে দিয়েছিলেন। জিয়ানলুইজি দোনারুমা, মার্কো ভেরাত্তি ও মারিও বালোতেল্লিকে প্রতিনিধিত্ব করেছিলেন। এক কথায় তিনি ছিলেন প্রভাবশালী এজেন্ট।

খবরগুলোতে বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার গুরুতর অসুস্থ হয়ে মিলানের একটি হাসপাতালে ভর্তি হন। তারপরই মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে সোশ্যাল মিডিয়ায় তা প্রত্যাখ্যান করেন এই ইতালিয়ান।

তবে শনিবার রায়োলার অফিসিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্টে তার পরিবারের পক্ষ থেকে দুঃসংবাদ জানানো হয় যে, দীর্ঘ অসুস্থতার পর মারা গেছেন তিনি।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘অশেষ দুঃখের সঙ্গে আমরা সবচেয়ে যত্নশীল ও চমৎকার ফুটবল এজেন্টের মৃত্যুর খবর জানাচ্ছি। আলোচনার টেবিলে আমাদের খেলোয়াড়দের যেভাবে আগলে রাখে, ঠিক ততটা শক্তি দিয়েই শেষ পর্যন্ত লড়ে গিয়েছিল মিনো। স্বাভাবিকভাবে মিনো আমাদের গর্বিত করেছিল এবং সে এটা বুঝতে পারেনি। সে তার কাজ দিয়ে অনেকের জীবন স্পর্শ করেছিল এবং আধুনিক ফুটবলে নতুন অধ্যায় লিখেছিল। তার শূন্যতা সারাজীবন টের পেতে হবে।’

বিডিপ্রেস এজেন্সি/টিএ

আরও পড়ুন...